অন্য ভাষায় :
শুক্রবার, ০৯:২৪ পূর্বাহ্ন, ২১ জুন ২০২৪, ৭ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
নোটিশ :
মানব সেবায় নিয়োজিত অলাভজনক সেবা প্রদানকারী সংবাদ তথ্য প্রতিষ্ঠান।

সিডিউল লোডশেডিং নেই বরিশালে, চাহিদার চেয়ে বিদ্যুৎ উৎপাদন বেশি

সময়ের কণ্ঠধ্বনি ডেস্ক:
  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ১৯ জুলাই, ২০২২
  • ৭৩ বার পঠিত

সারাদেশে মঙ্গলবার থেকে এলাকাভিত্তিক লোডশেডিংয় শুরু হয়েছে। সে হিসেবে প্রতিটি এলাকায় এক ঘণ্টা করে লোডশেডিং করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে। একঘণ্টায় যদি বিদ্যুতের ঘাটতি মোকাবেলা করা সম্ভব না হয়, তাহলে এলাকাভিত্তিক প্রতিদিন দুই ঘণ্টা করে লোডশেডিং করার কথা রয়েছে। প্রথম দিনে এমন ঘোষণার কোনো প্রতিফলন লক্ষ্য করা যায়নি বরিশালে।

জেলার বিদ্যুৎ বিভাগের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, দৈনিক যে লোডশেডিং শুরু হচ্ছে, বরিশাল সে তালিকায় নেই। আর যদি পরবর্তীকালে হয়েও থাকে, তাহলে সেটা ভোগান্তি হওয়ার মতো দীর্ঘস্থায়ী কোনো লোডশেডিং হবে না। বিষয়টি নিশ্চিত করে বরিশাল ওয়েস্ট জোন পাওয়ার ডিস্টিবিউশন কোম্পানি লিমিটেড-১-র তত্ত্বাধায়ক প্রকৌশলী এটিএম তরিকুল ইসলাম বলেন, লোডশেডিং করার জন্য আমাদের কাছ থেকে কোনো তালিকা নেয়া হয়নি। তাছাড়া এ বিষয়ে এখন পর্যন্ত আমরা কিছুই অবগত নই।

তিনি আরো বলেন, ধারণা করা যাচ্ছে বরিশাল লোডশেডিংয়ের আওতামুক্ত থাকবে। কারণ হিসেবে তিনি বলেন, সরবরাহ ও বিতরণসহ বিভিন্ন কারণে বরিশালে বরাবরই লোডশেডিং কম হয়ে থাকে। আশা করছি এবারো তাই হবে।

সংশ্লিষ্ট একাধিক সূত্রে জানা গেছে, বরিশালে তিনটি বিদ্যুৎ উৎপাদনকেন্দ্র রয়েছে। তাই লোডশেডিং হবার আশংকা নেই।

বিদ্যুৎ বিভাগের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, বরিশাল বিভাগের ভোলার ২২৫ মেগাওয়াট গ্যাসটারবাইন পাওয়ার প্লান্ট, এগ্রিকো ও নগরীর সামিট বরিশাল পাওয়ার লিমিটেড থেকে বিদ্যুৎ উৎপাদন হচ্ছে। প্রতিদিন গড়ে প্রায় পাঁচ শ’ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ জাতীয় গ্রীডে যাচ্ছে। এরমধ্যে গ্যাসটারবাইন পাওয়ার প্লান্ট থেকে ২৭০ মেগাওয়াট, এগ্রিকো থেকে ৯৫ ও সামিট থেকে ১১০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ সরবরাহ করা হয়।

সূত্রে আরো জানা গেছে, যে অঞ্চলে বিদ্যুৎ উৎপাদন হয়, সেই অঞ্চলের চাহিদা পূরণ করার পর সরবরাহের নিয়ম। সে অনুযায়ী বরিশালে লোডশেডিংয়ের সম্ভাবনা কম।

বরিশালের বিদ্যুৎ বিভাগের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তারা নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, বরিশালে বর্তমানে বিদ্যুৎ চাহিদা দুই শ’ মেগাওয়াট। এ চাহিদার পুরোটাই আমরা পাচ্ছি। তাই সারাদেশে লোডশেডিং হলেও বরিশালে লোডশেডিংয়ের কোনো আশঙ্কা দেখছি না।

বরিশাল পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির দায়িত্বপ্রাপ্ত একাধিক কর্মকর্তা বলেন, ভোলা থেকে পর্যাপ্ত বিদ্যুৎ সরবরাহ করা হচ্ছে। বরিশালে আপাতত লোডশেডিংয়ের কোনো আশংকা নেই।

পল্লী বিদ্যুতের একজন প্রকৌশলী বলেন, গুণগত, মানসম্পন্ন এবং নিরবিচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ সরবরাহে পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি কাজ করছে। আমাদের চাহিদার পুরোটাই গ্রীড থেকে সরবরাহ হচ্ছে। জেলা তো ভালো, বিভাগের কোথাও সেই অর্থে লোডশেডিংয়ের সম্ভাবনা নেই। নামেমাত্র যেটুকু লোডশেডিং ও লো-ভোল্টেজের সমস্যা রয়েছে তা দূর করার কাজ চলমান রয়েছে।

অন্যদিকে বরিশালের সকল শপিংমল, ব্যবসা প্রতিষ্ঠান, আলোকসজ্জা রাত ৮টার পর বন্ধ রাখার জন্য প্রশাসনের পক্ষ থেকে নগরীতে প্রচার-প্রচারণা চালানো হয়েছে। প্রচারণাকালে বলা হচ্ছে- এই আইন অমান্য করা হলে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..
© All rights reserved © 2021 SomoyerKonthodhoni
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com